Thursday, 18 February 2016

ব্রেক আপ ও বিষণ্ণতা

ব্রেক আপ পরবর্তী সময়,আসলে খুবই সেনসিটিভ একটি সময়। সবাই প্রাণপণে চান দুঃসহ প্রতিটি মুহূর্তকে ভুলে থাকতে। আমরা প্রফেশনালরাও বলি খারাপ সময়গুলোতে আনন্দের, ভালোলাগার কাজে মনোযোগী হতে। কিন্তু নতুন সম্পর্কে জড়ানো কোন প্রকৃত সমাধান নয়। আবার এমনো নয় একটি সম্পর্ক ভাঙ্গার পর আপনি নতুন কোন সম্পর্কে জড়াবেন না। শুধু খেয়াল করুন আপনি ইমোশনালী স্টেবল কিনা, নতুন সম্পর্কের জন্য প্রস্তুত কিনা। আপনার উদ্দেশ্যটা আসলে কি? নতুনভাবে নতুন করে জীবনটাকে সাজানোর জন্য নতুন সম্পর্কের দিকে যাচ্ছেন, নাকি শুধু পুরানো সম্পর্কের ভূত তাড়াতে চাইছেন। আপনার উদ্দেশ্যই আপনার সম্পর্কের সফলতা নির্ধারণ করবে। তা না হলে হয়তো আবারো আপনাকে সম্পর্কের জটিলতার অসুখী সমাপ্তির মুখোমুখী হতে হবে!
মানুষ ব্রেক আপ পরবর্তী সময়ে অতিরিক্ত মানসিক চাপ, উদ্বেগ, বিষন্নতায় ভুগে। কি করবেন বুঝে উঠতে পারেন
না। অনেকে অতীত সম্পর্কে তাৎক্ষণিক মলম লাগাবার জন্য নতুন সম্পর্কে জড়িয়ে পড়েন। বেশীরভাগ সময়ই নতুন এই সম্পর্কগুলির স্থায়ীত্ব বেশীদিন হয়না। কারণ তীব্র আবেগের চাপ, পুরানো প্রেমের স্মৃতি ভুলবার জন্য যে সম্পর্ক তৈরী হয় তার মজবুত ভিত্তি থাকে না।
অনেক ক্ষেত্রেই দেখা যায় যিনি সম্পর্ক ভুলতে নতুন সম্পর্কে জড়িয়ে পড়েন, কিছুদিন পর মান-অভিমান মিটমাট হয়ে গেলে পুরানো সম্পর্কেই ফিরে যান। মাঝখান থেকে তৃতীয় ব্যাক্তি বলীর পাঠা হন। অনেকে আবার এই প্রত্যাখ্যানটাকে এতো ভয়ংকর অভিজ্ঞতা হিসাবে নেন যে তিনি নতুন কোন স্থায়ী সম্পর্কে জড়াতেই পারেন না। জড়ালেও ভয়ে নিজেই সম্পর্ক ভেঙ্গে দেন।
সম্পর্কের মেয়াদ যেমনই হোক অল্প কিংবা বেশী, একটা সম্পর্কের বিচ্ছেদের পরবর্তী সময়টুকু পার করা আসলেই কষ্টকর।মানুষ তখন তীব্র বিষণ্ণতায় ভুগতে থাকে।
https://www.facebook.com/Psychobd/
নেট থেকে সংকলিত

No comments:

Post a comment